প্রতীক্ষা
প্রকাশিত: জানুয়ারী ২২, ২০১৯
লেখকঃ

 32 বার দেখা হয়েছে

এই লেখক এর আরও লেখা পড়ুনঃ

রাত্রি যখন গভীর হয় সকলে ঘুমায় আমি জেগে থাকি।
খোলা আকাশের বুকে নক্ষত্রের গায়ে লেখা রয়েছে কি-না তোমার নাম আমি খুঁজে খুঁজে দেখি।
আমি নীল জল, মরুভূমি, সাগর, পাহাড়
আকাশ-পাতাল সব তন্ন তন্ন করে খুঁজেছি;
আকাশের ওই সবচেয়ে উঁচু তারাটিকে পাথর চোখ মেলে দেখেছি
তুমি আছ কি-না!
তুমি আমার স্বপ্ন সমুদ্র
এখানে গাঁও শালিকেরা ডানা মেলে উড়ে যায়
পথ দেখায়, তোমাকে ডাকে।
তুমি স্মৃতি হয়ে জ্বলো এই বুকে
তুমি চিতা বহ্নিমান
হৃদয়ের প্রতিটি কম্পনে তুমি আছ বেগবান
তুমিই এক অনন্য নিয়তি আমার।
নিষ্পলক তাকিয়ে থাকি অসীম আকাশের দিকে
সুনীল সেই শূন্যতায় যদি পাই তোমার দেখা!
তুমি জেগে আছ আমার বুকে চির অম্লান
জ্বলন্ত নক্ষত্রের মতো।
বাদলের মাতাল করা বাতাসে
তুমি আসবে আমার কাছে
তোমার আগমনী অনুভাব করি,
আমি লিপ্ত হই তোমার আরাধনায়
বৃষ্টির তরল নিঃশ্বাসে
অবুঝ শিশুর মতো সরল বিশ্বাসে।
তুমি আমার স্মৃতির অঙ্গনে যতনে বেড়ে ওঠা রজনীগন্ধার একগুচ্ছ শুভ্র ডাঁটা,
রাতের অন্ধকারে আমার নিঃশ্বাসে
অহর্নিশ জেগে আছ তুমি
যুগ যুগ ধরে নিভৃত গোপনে;
তোমার কথাই যেন বলে ফাগুনের দখিনা বাতাস।
যে কথা মৌমাছির গুঞ্জরে নীরবে
যে কথা বাতাস বলে চুপিসারে
যে কথা তোমাকে আজও হয়নি বলা
সেই কথাই যেন শুধু সিম্ফনি হয়ে বাজে হৃদয়ে!
সমস্ত দ্বিধার দেয়াল ডিঙিয়ে তুমি আসবে
নীল সমুদ্রের তীর উজান পেরিয়ে
দুঃসাহসী নাবিকের মতো
তুমি আসবে জানি
আমার নিস্তব্ধ নিশীথের নিঃসঙ্গ উপত্যকায়।
এখানে ধীরে ধীরে গড়া প্রেমের স্তম্ভ জেগে আছে
একটি শাশ্বত
সূর্যের অনন্ত প্রতীক্ষায়….
——–বুনোহাঁস

সম্পর্কিত পোস্ট

যদি পাশে থাকো

যদি পাশে থাকো

তাসফিয়া শারমিন ** আজকের সকালটা অন্য রকম। সাত সকালে আম্মু বকা দিলো। মানুষের ঘুম একটু দেরিতে ভাঙতেই পারে। তাই বলে এত রাগার কী আছে ?একেবারে যে দোষ আমারও তাও নয়। মানুষ ঘুম থেকে উঠে ফোনে বা দেওয়াল ঘড়িতে সময় দেখে। কিন্তু আমি উঠি জানালার পর্দা সরিয়ে বাইরের আলো দেখে।কে জানে...

কুড়িয়ে পাওয়া রত্ন

কুড়িয়ে পাওয়া রত্ন

অনন্যা অনু 'আমিনা বেগম' মেমোরিয়াল এতিমখানার গেট খুলে ভেতরে ঢুকতেই ওমরের বুকটা ধুক ধুক করতে শুরু করে। ওমর ধীর গতিতে ভেতরে প্রবেশ করে। চারদিকে তখন সবেমাত্র ভোরের আলো ফুটতে শুরু করেছে। ওমর গত রাতের ফ্লাইটে আমেরিকা থেকে এসেছে। সে এসেই সোজা আমিনা বেগম মেমোরিয়াল এতিমখানায়...

দাদাভাইকে চিঠি

দাদাভাইকে চিঠি

প্রিয় দাদাভাই, শুরুতে তোকে শরতের শিউলি ফুলের নরম নরম ভালোবাসা। কেমন আছিস দাদাভাই? জানি তুই ভালো নেই, তবুও দাঁতগুলো বের করে বলবি ভালো আছি রে পাগলী! দাদাভাই তুই কেন মিথ্যা ভালো থাকার কথা লেখিস প্রতিবার চিঠিতে? তুই কি মনে করিস আমি তোর মিথ্যা হাসি বুঝি না? তুই ভুলে গেছিস,...

৩ Comments

  1. Halima tus Sadia

    মোহাসিনা আপু এ কবিতাটার লিংক দুই বার দিয়েছেন।
    একবার পড়ছি আবার ও পড়লাম।

    Reply
  2. আফরোজা আক্তার ইতি

    অসাধারণ! প্রিয়জনকে পাওয়ার প্রতীক্ষা যে অসীম হয়, রাত পেরিয়ে যায়, তারার মেলা শেষ হয়ে ভোরের আলোয় আলোকিত হয়ে যায় চারদিক, তবুও দেখা মেলে না প্রিয়তমার। সে কি আসবে? এই প্রতীক্ষা যে দীর্ঘসময়ের অপেক্ষা হয়ে দাঁড়ায়।
    অনেক সুন্দর লিখেছেন। শুভ কামনা অনেক।

    Reply
  3. Md Rahim Miah

    আপু একই কবিতা দুইবার দেওয়া হয়েছে। ১৯নাম্বারে এটা পড়েছি

    Reply

Submit a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *